Main Menu

চকরিয়ায় আ’লীগ নেতার বাড়ীতে হামলা ও লুটপাট

চকরিয়া প্রতিনিধিঃ

চকরিয়া পৌরসভায় এক আওয়ামীলীগ নেতার বাড়ীতে স্বশস্ত্র হামলার ঘটনা ঘটেছে। ১৫/২০ জনের হামলাকারি গৃহকর্তা ও তার স্ত্রী-পুত্রকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে নগদ টাকা, স্বর্ন ও মোবাইল ফোন লুট করে, গাছ-পালা কেটে, মৎস্য পুকুরে বিষ ঢেলে দিয়ে ২০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি করেছে।

শুক্রবার ২১ ফেব্রুয়ারী সকাল সাড়ে ১১ টার দিকে এ ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় আইনের আশ্রয় নেবার প্রস্তুতি নিয়েছেন বলে জানিয়েছেন ভুক্তভোগী।

সরেজমিনে চকরিয়া পৌরসভা ৯ নং ওয়ার্ডে কমিশনার পাড়ার মৃত নুরুল কবিবের পুত্র ওয়ার্ড আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি ক্ষতিগ্রস্ত ফরিদুল আলম (৪৩) সাংবাদিকদের জানান, তার বাড়ী ভিটা সংলগ্ন ৬০ শতক জমি নিয়ে প্রতিবেশী মোহাং জাকেরের পুত্রদের মধ্যে বিরোধ চলে আসছিল।

এ ব্যাপারে কক্সবাজার জেলা জজ আদালতে রেকর্ড সংশোধনির মামলা চলমান রয়েছে। মামলায় হেরে যাবার ভয়ে মামলা শেষ না হতেই বারবার বাড়ীভিটা জবর দখল করার চেষ্টায় হামলা-লুটপাট চালিয়ে আসছিল জাকেরের পুত্র গং। এ নিয়ে স্থানীয়ভাবে একাধিক শালিশী বৈঠকের রায় ও বাদী ফরিদের পক্ষে রয়েছে। কিন্তু কোন অবস্থায়ই বিচার মানতে রাজি নয় বিবাদী গং। তারই ধারাবাহিকতায় মৃত জাকেরের পুলিশ কনষ্টেবল পুত্র সাইফুল ইসলাম চাকুরী থেকে এসে ১৫/২০ জনের সন্ত্রাসী নিয়ে বদ্ধজলমহালের ওপার থেকে নৌকা যোগে এসে অতর্কিত ফরিদের বসতঘরে হামলা চালায়। ফরিদকে দেশীয় তৈরী দা-কিরিচ নিয়ে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে বাড়ীতে লুটপাট শুরু করে। সন্ত্রাসীরা ফরিদের টিনের বাড়ীটি দা দিয়ে কুপিয়ে টুকরো টুকরো করে বাড়ীতে ঢুকে নগদ ৭ লক্ষ ১০ হাজার টাকা, ৩ ভরি স্বর্ণালঙ্কার ও একটি স্যামসাং মোবাইলসেট লুটে নেয়।

যাবার সময় সন্ত্রাসীরা দা দিয়ে কুপিয়ে টিনের ঘর, লেট্টিন, দুই শতাধিক রোপিত ফলজ ও বনজ গাছ কেটে সাবাড় করে পুকুরে বিষ ঢেলে দিয়ে চলে যায়। ফরিদ জানায়, সন্ত্রাসীদের জুলুম নির্যাতনে তিনি ও তার পরিবারের অন্তত ২০ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে। এতে তিনি কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে প্রেসার বেড়ে অসুস্থ হয়ে পড়েন। পরদিন সুস্ততা বোধ করলে সাংবাদিক ও স্থানীয় গন্যমান্য ব্যক্তিকে ডেকে বিষয়টি অবহিত করেন। এ ব্যাপারে তিনি আদালতে মামলা করার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে সাংবাদিকদের জানান।






Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked as *

*